শনিবার, ০৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:০৩ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
বগুড়ায় ওয়ার্কার্স পার্টির মাস্ক ও বিতরণ বগুড়ায় বিএনপি কার্যালয়ে করোনা আক্রান্ত রোগীর পরিবারের মাঝে বিনামূল্যে ঔষধ বিতরণ বগুড়ায় মাটিডালী ফুটবল প্রিমিয়ার লীগ এর উদ্বোধন বগুড়া সদর উপজেলা শাখারিয়া জামে মসজিদের ছাদ ঢালাই কাজের উদ্বোধন সিংড়ায় জেএসএস নবগঠিত কমিটির পরিচিতি ও মতবিনিময় সভা বগুড়ায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত মোশারফ এমপির সঙ্গে নবনির্বাচিত এম-ট্যাব বগুড়ার আঞ্চলিক কমিটির নেতৃবৃন্দের সৌজন্যে সাক্ষাৎ মহাস্থানে ভূয়া কাবিনে বিবাহ, ৩বছর স্বামী স্ত্রী পরিচয়ে ধর্ষণের অভিযোগে কোর্টে মামলা দায়ের নন্দীগ্রামে হাঁস নিয়ে মারামারির ঘটনায় গুরুতর আহত ৪ সিংড়ায় সমাজসেবায় এ্যাওয়ার্ড পেলেন রুবেল হোসেন

স্বামীকে পরকীয়া থেকে রক্ষা ও শুধুই নিজের করে রাখার কার্যকারী কিছু টিপসঃ

সাংবাদিকের নাম:
  • Update Time : রবিবার, ১৩ জুন, ২০২১
  • ১ Time View
স্বামীকে পরকীয়া থেকে রক্ষা ও শুধুই নিজের করে রাখার কার্যকারী কিছু টিপসঃ-
১) স্বামীর ঘুম থেকে উঠার আগে নিজে উঠে পরিপাটি হয়ে নেওয়া যাতে স্বামী আপনাকে সকাল বেলাই অপরিপাটি না দেখে। তার সাথে সুগন্ধি ব্যবহার করুন। যাতে সকালে আপনাকে দেখেই আপনার স্বামীর মন ভরে যায়।
২) তার ঘুম যেভাবে ভাঙ্গালে সে পছন্দ করবে, সেভাবে তাকে ঘুম থেকে জেগে তুলুন।
৩) তার প্রয়োজনীয় কাজ শেষ করে তবেই অন্য কাজে যাবেন।
৪) সে কখন বাসায় আসতে পারে তা অনুমান করে পরিপাটি হয়ে থেকে তার অপেক্ষা করুন এবং সে ডাকার সাথে সাথে দরজা খুলে দিন এক মুচকি হাসি দিয়ে। এবং তার সাথে কথা বলার সময় সর্বদা হাসি মুখে কথা বলুন।
৫)তার সামনে কখনো গন্ধ নিয়ে যাবেন না। সবসময় একটা সুঘ্রাণ রাখুন নিজের শরীরে।
৬) পরিপূর্ণ পর্দা করুন।
৭)স্বামীকে তাহাজ্জুদ এবং ফজরের নামাজের জন্য ডেকে দিন। আল্লাহর তরফ হতে স্বামীর হৃদয়ে আপনার প্রতি অফুরন্ত ভালোবাসা জন্ম নিবে।
৮) স্বামীর মনে কখনো আঘাত দিয়ে কথা বলবেন না।
৯) কখনো স্বামীকে নিজের উপর রাগ হতে দিবেন না বরং স্বামী যে ইশারায় চালাতে চায় সে ইশারায় চলুন( নাফরমানীর কাজ ব্যতিত)।
১০)স্বামী কোন কাজ করতে আদেশ করলে সাথে সাথে হাসি ও খুশির সহিত কাজ করে দিন।
১১)স্বামীর কাছে থাকাকালীন তার অনুমতি ব্যতিত কোন নফল ইবাদাত করবেন না। স্বামীর খেদমত অন্যান্য নফল ইবাদাত থেকেও উওম।
১২)পৃথিবীর কোন মানুষের গিবত না করা।
১৩)স্বামীর হুকুম ছাড়া স্বামীর মাল থেকে কাউকে দান বা হাওলাত না করা। এটা জায়েজ নেই।
১৪)স্বামীর কোন দোষের কথা পৃথিবীর কোন মানুষকে না বলা। বরং স্বামীর মাথা যখন একদম ঠান্ডা থাকবে তখন স্বামীকে হাসিমুখে বিনয়ের সহিত তার ভুল ধরিয়ে ও সুধরে দেওয়ার চেষ্টা করা।
১৫)স্বামীর কোন কাজ নিজের মতের বিরুদ্ধে হলেও তর্ক না করা।
১৬)স্বামী যা আনুক তা ১ টাকার হলেও এমন একটা ভাব করুন যেন এটা আপনার কাছে ভিষণ পছন্দ হয়েছে। এতে পুরুষেরা স্বস্তি পায়।
১৭)স্বামীর বাড়িতে যতই কষ্ট থাকুক, স্বামীর সাথে সমাধামের চেষ্টা করুন। তবে হাই হতাশা করে স্বামীকে কষ্ট দিবেন না।
১৮)স্বানীর মেজাজ বুঝে ব্যবহার। তার মুখে হাসি থাকলে আপনিও হাসুন। আর তার মন কোন কারণে খারাপ থাকলে আপনিও তার মন খারাপের ভাগিদার হোন, মন খারাপের সময় হেসে এটা প্রকাশ করবেন না যে তার মন খারাপে আপনার কিছু যায় আসে না। আর মেজাজ খারাপ থাকলে একদম চুপ থাকবেন।
১৯)স্বামী আপনাকে যে টাকা দিবে তা ১০০% তাকে হিসাব দিয়ে দিন।আপনার ওপর একটা অন্যরকম বিশ্বাস সৃষ্টি হবে ইনশাআল্লাহ।
২০)শশুড়-শাশুড়ির সেবা করুন। এবং শশুড় বাড়ীর সকলকে ভালোবাসুন।
২১)স্বামীকে মনের ভুলেও কাজ করতে দিবেন না। বরং তাকে ঠিক কাচের পুতুলের মতো রাখার চেষ্টা করুন।
২২)ঘরের কাজ কারো জন্য ফেলে রাখবেন না।
২৩)স্বামী বাবা-মা এর কাছে টাকা দিলে তা নিয়ে মন খারাপ করবেন না। তাদের ছেলের টাকা তারা নিবে না তো কে নিবে?
২৪) স্বামী কোন সফর থেকে ফিরলে তাকে খেদমত করুন, প্রশ্ন করুন পরে।
আল্লাহ তায়ালা আমাদের বোনদেরকে আমল করার তৌফিক দান করুন…..আমীন!
এর পরও যদি কোন পুরুষ বিপথে যায় শরিয়ত সম্মত ভাবে সবরের সাথে পরিস্থিতি মোকাবেলা করুন।
লাইক কমেন্ট করে,উসাহীত,করে,
শেয়ার করুন

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন.

Leave a Reply

More News Of This Category
logo

এই পত্রিকার সকল সংবাদ, ছবি ও ভিডিও স্বত্ত্ব সংরক্ষিত ©২০19 boguracity.com